একজন ওয়েব ডেভেলপার হওয়ার পিএইচপি ডেভেলপমেন্ট গাইডলাইন – পর্ব ১

আমার আগের আর্টিকেলটিতে আমি ওয়েব ডেভলপারের সম্পর্কে একটি বর্ণনা দিয়েছিলাম তো আজকে আমি এই আর্টিকেলে পিএইচপি দিয়ে কিভাবে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখতে হবে সেই সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করব।

সরাসরি যদি আমি শুরু করি তাহলে পিএইচপি শেখার সাথে সাথে আমাদেরকে আরও দুইটি বিষয় সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে তার মধ্যে একটি হচ্ছে এসকিউএল এবং আরেকটি হচ্ছে মাইএসকিউএল।

আমি আগেই বলেছিলাম পিএইচপি হচ্ছে আপনার ব্রাউজারের ফর্মে দেওয়া একটি ডাটাকে সংগ্রহ করে ডাটাবেজের স্টোর করে এবং সেই ডাটাকে আবার এইচটিএমএল এর মাধ্যমে ডায়নামিক আকারে দেখায়।

তো এই যে ডাটাগুলোকে স্টোর করা এবং ডিসপ্লে করার ব্যাপারগুলোও তার জন্য আপনাকে এসকিউএল এবং মাইএসকিউএল এর সহযোগিতা নিতে হবে পিএইচপির সাথে।

তাহলে খুবই সহজেই বুঝতে পারছেন যে পিএইচপি সাথে এসকিউএল এবং মাইএসকিউএল শেখটাও অনেক জরুরী।

এসকিউএল কি?

এসকিউএল হচ্ছে স্ট্রাকচার্ড কোয়েরি ল্যাঙ্গুয়েজ, যা দ্বারা আপনি একটি ডাটাবেসের মধ্যে আপনার ডাটা গুলো আপনার পছন্দ অনুযায়ী ডিজাইন করে স্টোর করতে পারবেন আপডেট করতে পারবেন এবং ডিলিট করতে পারবেন।

তাহলে মাইএসকিউএল টা কি?

মাইএসকিউএল হচ্ছে ওই যে ডাটাবেজটি তে আপনি এসকিউএল দ্বারা আপনার ডাটাগুলো স্টোর করবেন অথবা আপডেট করবেন সেই ডাটাবেজ সিস্টেম। মাইএসকিউএল খুবই পপুলার একটি রিলেশনাল ডাটাবেজ ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম (RDBMS)। মাইএসকিউএল এর মধ্যে আপনাকে এসকিউএল দ্বারা আপনার ডাটাগুলো প্রসেসিং করতে হবে তাই মাইএসকিউএল এ এসকিউএল ব্যবহার করা হয়।

আশাকরি ডাটাবেজের ব্যাপারগুলো বুঝতে পেরেছেন আর এস কিউ এল এবং মাইএসকিউএল সম্পর্কে একটি ধারণা হয়েছে।

তো আমরা শুরু করেছিলাম পিএইচপি শেখা নিয়ে। যে কোন ল্যাঙ্গুয়েজ শেখার জন্য আপনাকে অবশ্যই তার বেসিক সম্পর্কে ধারণা রাখতে হবে তাহলে কিভাবে বুঝতে পারবেন যে আপনাকে কোন বেসিক টি শিখতে হবে?

ব্যাসিক অর্থ হচ্ছে আপনাকে জানতে হবে যে কিভাবে পিএইচপি সিনটেক্স লিখা হয় এবং পিএইচপি তে কি কি কাজ করা যায় এবং সেই সিনটেক্স গুলো কি কি।

যদি আপন পিএইচপি কীভাবে লিখতে হয় সেই সিনটেক্স গুলো বুঝার সাথে সাথে একদম মুখস্ত করে ফেলতে পারেন তাহলে দেখবেন আপনার যেকোন ল্যাঙ্গুয়েজ অথবা পিএইচপি শেখা একদমই সহজ হয়ে গিয়েছে।

বেশিরভাগ মানুষ প্রোগ্রামিং শেখার সময় প্রোগ্রামিং এর বেসিক ভালো করে শেখে না অথবা কিছুটা শেখার পর পুরো অংশ শিখতে চায় না মনে করে যে এতটুকু দিয়েই হয়ে যাবে কিন্তু এটি খুবই খুবই বড় একটি ভুল ধারণা যা আপনাকে প্রোগ্রামিং শিখতে ১০০ ধাপ পিছিয়ে দিবে।কারণ আপনি যখন কমপ্লিট বেসিক সম্পর্কে ধারনা রাখবেন না তখন এডভান্স লেভেলের সিনট্যাক্স অথবা প্রোগ্রামিং কোড গুলো আপনি বুঝতে পারবেন না তখন আপনার ভিতরে হতাশা তৈরি হবে এবং আপনার কাছে মনে হবে যে আপনি প্রোগ্রামিং শিখতে পারবেন না তাই আমি বলব প্রথমে যে কোন প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ যেমন পাইথন, পিএইচফপ্‌ সি প্লাস্ প্লাস যাই হোক না কেন সবসময় ল্যাঙ্গুয়েজ এর বেসিক সম্পর্কে ভাল ধারণা নেওয়ার চেষ্টা করবেন।

ব্যাসিক শেখার জন্য আমি অবশ্যই আপনাদেরকে w3schools.com থেকে শেখার অনুরোধ করবো।

যদি ভাল মানের ওয়েব ডেভেলপার হতে চান তাহলে অবশ্যই W3schools.com থেকে বেশি শেখার চেষ্টা করুন এবং বেসিক শেখার পরেও W3schools.com এর বিভিন্ন আপডেট সম্পর্কে ধারনা রাখুন দেখবেন আপনার প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ অনেকটুকুই সহজ হয়ে যাবে শেখার জন্য।

w3schools.com এর মধ্যে পিএইচপি নিয়ে খুব সহজে তার বেসিক গুলো দেওয়া আছে। আপনি প্রতিদিন একটি করে পিএসপি সিনট্যাক্স অথবা নিয়ম শেখার চেষ্টা করুন। প্রতিদিন বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো খাতায় লেখার চেষ্টা করুন এবং তা প্রতিদিন একবার করে পড়ার চেষ্টা করুন অথবা রিভিশন দিন তাহলে দেখবেন আপনি কখনোই সিনটেক্স ভুলে যাবেন না।

সিন্টেক্স লিখার যে নিয়ম আছে সেটি পূর্ণাঙ্গভাবে ধারণ করার চেষ্টা করুন কারন আমি আবারও বলছি সিনট্যাক্স না বুঝতে পারলে আপনি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ এডভান্স লেভেল বুঝতে পারবেন না।শুধু সিনট্যাক্স লিখার নিয়ম জানলেই হবে না আপনাকে বুঝতে হবে যে একটি সিনট্যাক্স এর সাথে আরেকটি সিনট্যাক্স কিভাবে কাজ করছে।

আমি বলব পিএইচপির বেসিক শিখার জন্য আপনি যদি একা একা চেষ্টা করেন তাহলে ম্যাক্সিমাম ৩০ দিন যথেষ্ট যদি আপনার এর থেকেও বেশি সময় লাগে তাহলেও আপনি নিতে পারেন তবে প্রতিদিন যা শিখবেন তা প্রপার ভাবে শেখার চেষ্টা করবেন এবং এমনভাবে শিখবেন যাতে সারা জীবন মনে থাকে।

ব্যাসিক শিখার পর আপনার কাজ হচ্ছে এসকিউএল এবং মাইএসকিউএল দুটি একসাথে শেখা।তাই প্রথমেই আপনি w3school থেকে না শিখে ইউটিউবে ভিডিও দেখে শেখার চেষ্টা করুন কারণ কিভাবে এসকিউএল মাইএসকিউএল একসাথে কাজ করে তা বোঝার জন্য আপনাকে একটি পূর্ণাঙ্গ ভিডিও দেখতে হবে তাহলে খুব সহজেই এসকিউএল মাইএসকিউএল একসাথে কাজ করা বুঝতে পারবেন।

লিখতে পারেন এমন যে:

Learn MySQL with PHP
Connect MySQL database with PHP eand PHPmyadmin
Create database with SQL MySQL and PHP

এগুলো লিখে শুরু করতে পারেন তারপরে বাকিটা আপনি এমনি এমনি বুঝতে পারবেন। যখন কিভাবে এসকিউএল মাইএসকিউএল এবং পিএইচপি কাজ করে তা বুঝা হয়ে যাবে তখন আপনাকে অবশ্যই এসকিউএলের সবগুলো কুয়েরি সম্পর্কে ভালোভাবে ধারণা নিতে হবে কারণ যদি আপনি কুয়েরি ভালোভাবে না জানেন তাহলে পিএইচপি এবং মাইএসকিউএল এর ব্যবহার ভালভাবে এবং সঠিকভাবে করতে পারবেন না।

যখন আপনি এসকিউএল মাইএসকিউএল এবং পিএইচপি সম্পর্কে বুঝতে পারবেন তখন w3schools থেকে এসকিউএলের সবগুলো কোয়েরি প্র্যাকটিস করুন এবং খাতায় লিখে তা বারবার রিভিশন দিন।

আমি বলব এসকিউএলের জন্য সাতদিন যথেষ্ট ব্যাসিক প্র্যাকটিসের ক্ষেত্রে।

যদি আপনি এই তিনটি ধাপ ভালোভাবে জানতে পারেন এবং বুঝতে পারেন তাহলে মনে করবেন আপনি পিএইচপি ল্যাঙ্গুয়েজে শতভাগ এগিয়ে গিয়েছেন শেখার জন্য। কারণ এই তিনটি বিষয় শেখা অত্যন্ত জরুরী পিএইচপিতে।

এখন কথা হচ্ছে এসকিউএল মাইএসকিউএল এবং পিএইচপি ব্যবহার করে আপনাকে কয়েকটি প্রজেক্ট তৈরি করতে হবে যেখানে এই তিনটি বিষয় ইমপ্লিমেন্ট করে একটি পূর্ণাঙ্গ প্রজেক্ট তৈরি হয়েছে। যা থেকে আপনি বুঝতে পারবেন যে কিভাবে পিএসসি এসকিউএল মাইএসকিউএল একসাথে কাজ করে এবং কিভাবে একটি পূর্ণাঙ্গ প্রজেক্ট তৈরি করা যায়।

ইউটিউব এ সার্চ করলে অনেক ভিডিও সিরিজ পাওয়া যায় পিএইচপি মাইএসকিউএল প্রজেক্ট এর উপর:

School management system by PHP
E-commerce website by PHP

এরকম অনেক প্রযুক্তি আপনি পেয়ে যাবেন পিএইচপি এবং এসকিউএল মাইএসকিউএল এর উপর।

যদি এই ধাপগুলো শেষ করতে পারেন তাহলে আপনি পিএইচপি এর এডভান্স লেভেলে যেতে পারবেন এবং আপনার প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ এর বিভিন্ন লজিক ক্লিয়ার হতে শুরু হবে তাতে করে আপনি খুব সহজে পরের ধাপ গুলো অনুসরন করতে পারবেন।

তারপর আপনাকে শিখতে হবে অবজেক্ট অরিয়েন্টেড প্রসিডিউরাল পিএইচপি। বর্তমানে পিএসপির সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ অংশ হচ্ছে Object-Oriented Programming PHP (OOP PHP) বিভিন্ন সিএমএস অথবা ফ্রেমওয়ার্ক এ কাজ করার জন্য অবজেক্ট অরিয়েন্টেড পিএইচপি শেখা অনেক জরুরী। তাই এই বিষয়ে আপনাকে অবশ্যই এক্সপার্ট হতে হবে এবং রেগুলারলি প্র্যাকটিস করতে হবে।

তাছাড়া আরেকটি ব্যাপার আছে MVC ফ্রেমওয়ার্ক অথবা এমবিসি প্যাটার্ন আপনার একটি অ্যাপ্লিকেশন কে নির্দিষ্ট প্যাটার্ন অনুযায়ী ডিজাইন করে লজিক্যালি কাজ করবে।

এই বিষয়গুলো একটি আর্টিকেলে বোঝানো সম্ভব নয় তাই আমি ধাপে ধাপে সামনে আরও কিছু আর্টিকেল লিখবো যেখানে আপনাদেরকে বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে ধারণা দিয়ে সেই বিষয় গুলো কিভাবে লাইভ প্রজেক্টে প্র্যাকটিস করবেন এবং নিজেদের দক্ষতা বৃদ্ধি করবেন তা বুঝিয়ে দিব তাতে করে উপরের এই দুইটি ধাপ আপনাদের বুঝতে অনেক সুবিধা হবে।

আর্টিকেলটি ভালো লাগলে শেয়ার করবেন এবং আপনাদের নতুন কোন আইডিয়া থাকলে অথবা প্রবলেম থাকলে কমেন্ট করবেন।

1 Comment
  • Nayeem Ahmed
    Posted at 05:03h, 02 October Reply

    thanks.

Post A Comment

name:

phone:

email:

skype:

address:

Interested course: